ফ্যাশন

চুল ছাটুন চেহারা বুঝে

MD.Rasel khandokar 2020-12-06 06:45:13 লাইফ স্টাইল 2 months agoViews:120

চুল ছাটুন চেহারা বুঝে

ছেলেদের চুলের ছাঁটের ধাঁচ তো হাতে গোনা। তাই পোশাকের পরে চুলের প্রতি বিশেষ নজর দেওয়া জরুরি। চুল নিয়ে অবশ্য তরুণদের মধ্যে অনেক নিরীক্ষাও চলে। আজ এই কাট তো কাল সেই কাট। এই চুল লম্বা তো এই আবার ছোট। গরমের সময় তো অনেকেই ছোট চুলের কাট বেছে নেন। কারণ, সব ধরনের চুলের কাট কিন্তু সবার জন্য নয়। চুল কাটার আগে তাই মুখের গড়ন বুঝে কাট নেওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন চুল বিশেষজ্ঞরা।

Free join Digital marketing course:Click here


আমার মতে চেহারা বুঝে চুল ছাটা সব থেকে বেসি প্রয়োজন,, 
কারন একেকজনের মুখের আদল একেক রকম। কারও মুখ গোলাকার, কারও-বা লম্বাটে। চুলের ক্ষেত্রেও দেখা যায় পার্থক্য। সোজা, কোঁকড়ানো বা ঢেউ খেলে যাওয়া চুলের ভিন্নতা বদলে দেয় চুলের স্টাইল। কোন ধরনের মুখের গড়নে কেমন তা দেখে চুলের ছাঁট বেছে নেওয়া উচিত?

হুটহাট কারও চুলের স্টাইল দেখেই সেটা নিজের জন্য বেছে নেওয়া হবে বোকামি। আগে দেখে নিতে হবে এই স্টাইল আপনার চুলের ধরন ও মুখের গড়নের সঙ্গে যায় কি না। আর সে বিষয়ে হেয়ারস্টাইলে এক্সপার্ট কারও পরামর্শ নিয়েই চুলে নতুন কাট বেছে নিন। তবে গরমের দিনগুলোতে চুলের দৈর্ঘ্য যতটা কম রাখা যায়, ততই ভালো।’

আরো সব ধরনের ফ্যাশন টিপস ও স্টাইলিস সমাধান পেতে:Click here


দেশ-বিদেশের হেয়ার এক্সপার্টদের পরামর্শ মেনে নিচে থাকছে তেমনই কিছু টিপস। গরমে চুল ছাঁটার আগে একবার দেখে নিতে পারেন।

মুখের আদল চৌকো হলে
যাঁদের মুখাবয়ব চৌকো, তাঁদের চুলের কাট ছোট হলেই ভালো। সে ক্ষেত্রে অবশ্যই চুলের ধরন বুঝে সিদ্ধান্ত নিতে হবে।
সোজা চুলে: যাঁদের চুল সোজা, তাঁরা চুলের ওপরের অংশ কিছুটা বড় রাখতে পারেন এবং পেছনে ক্রমান্বয়ে নিচের দিকে ছোট করে নিতে পারেন। এই স্টাইলে চুল কাটালে চুলের স্বাভাবিক বৃদ্ধির পাশাপাশি চুলের কাটও ঠিক থাকবে অনেক দিন।
ঢেউ-খেলানো চুলে: একই আকৃতির মুখের লোকটির চুল যদি ঢেউ-খেলানো হয়, সে ক্ষেত্রে চুল কাটার সময়ে ঢেউ-খেলানো স্বাভাবিক ধরনটা রেখে দুপাশ দিয়ে অনেকটা ট্রিম করে নিলেই ভালো দেখাবে।
কোঁকড়া চুল: যাঁদের চুল ঘন আর কোঁকড়ানো, তাঁরাও বদলে নিতে পারেন স্টাইল। এমন চুল ওপর থেকে ছোট করে কাটলেও ভালো দেখাবে।

মুখ ডিম্বাকৃতির হলে মানিয়ে যেতে পেরে যে কোনো ছাঁট।
মুখ ডিম্বাকৃতির হলে মানিয়ে যেতে পেরে যে কোনো ছাঁট।

গোলাকার মুখাবয়বের জন্য
চেহারাটা গোলগাল হলে বেশি লম্বা চুল ভালো দেখাবে না। তবে সামনের দিকে কিছুটা বড় থাকলেই ভালো। যাতে করে চুলটা আঁচড়ে কপালের ওপরে তুলে রাখলে মুখটা আরও আকর্ষণীয় দেখায়।
সোজা চুলে: গোল আকৃতির মুখে চুল যদি সোজা হয়, তাহলে পেছন দিক থেকে দুপাশ কাটতে হবে ছোট করে। আর সামনের দিকে তিন থেকে পাঁচ ইঞ্চি পরিমাণ লম্বা করে কাটতে পারেন। সে ক্ষেত্রে যিনি আপনার চুল কাটবেন, তাঁর সঙ্গে আলাপ করে কপালের ওপর দিকের চুলগুলোর উচ্চতা বুঝে ছেঁটে নিন।
ঢেউ-খেলানো চুলে: চুল ঢেউ-খেলানো হলে খানিকটা লম্বাই রাখা উচিত। এ ধরনের চুল পাঁচ থেকে ছয় ইঞ্চি পরিমাণ লম্বা থাকলে মুখের আদলের সঙ্গে ভালো লাগবে। এ ধরনের চুলের সামনের দিকের স্বাভাবিক সৌন্দর্য ঠিক রাখতে বাইরে যাওয়ার আগে সি সল্ট স্প্রে (একধরনের চুলের স্প্রে) বা হেয়ার স্প্রে করে নিতে পারেন।
ঘন ও কোঁকড়ানো চুলে: গোলাকার মুখে চুল যদি ঘন বা কোঁকড়ানো হয়, তাহলে যিনি আপনার চুল কাটবেন, তাঁর সঙ্গে কথা বলে খানিকটা লম্বা চুলেই ঝুঁকে পড়ুন। কোঁকড়া চুলের সারা মাথায় লম্বা ভাবটা খারাপ লাগবে না।

চেহারাটা গোলগাল হলে বেশি লম্বা চুল ভালো দেখাবে না।
চেহারাটা গোলগাল হলে বেশি লম্বা চুল ভালো দেখাবে না।

ডিম্বাকার মুখে
যাঁদের মুখাবয়ব ডিম্বাকার, তাঁদের চুলে সাধারণত সব ধরনের ছাঁটই মানানসই হতে পারে। মনে রাখতে হবে, বেশি নিরীক্ষা চালাতে গেলে গুবলেট পাকিয়ে যেতে পারে আপনার স্টাইলে। তাই নিচের পরামর্শগুলো মেনে চুল ছেঁটে দেখতে পারেন, খারাপ লাগবে না আশা করা যায়।

মুখের শেপ স্কয়ার হলে চুলের ছাঁট ছোট হলেই ভালো।
মুখের শেপ স্কয়ার হলে চুলের ছাঁট ছোট হলেই ভালো।

সোজা চুলে: ডিম্বাকার মুখে সোজা চুল হলে ওপরের দিকে কিছুটা ছাড় দিতে পারেন। মাথার ওপরের চুল একটু লম্বা রাখা যায়। এর সঙ্গে মিল রেখে চারপাশে খানিকটা ছোট করে নিন। কানের দুই দিকে লেয়ার না রেখে স্বাভাবিকভাবে কেটে নিতে পারেন। বাইরে যাওয়ার আগে চুল ঠিকঠাক করে নিতে পারেন চুলের ঘনত্ব ও বাড়বাড়ন্ত দেখে।
ঢেউ-খেলানো চুলে: এ ক্ষেত্রে সবচেয়ে ভালো হবে চুলের ধরন বা স্বভাব ঠিক রেখে পেছনে ও দুই পাশ ছেঁটে নেওয়া। ট্রিম বাদে কাঁচি ব্যবহার করে এই চুলগুলো সতর্কতার সঙ্গে খাটো করতে পারেন।
ঘন ও কোঁকড়া চুলে: এই ধরনের চুলের জন্য ওপর-নিচ—সবদিকেই এক উচ্চতায় ছেঁটে নিন। কানের পাশেও খুব বেশি ছোট না করে সমান্তরাল ভাব রাখুন

আরো সব ধরনের ফ্যাশন টিপস ও স্টাইলিস সমাধান পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুনঃClick here



কমেন্ট


রিলেটেট পোস্ট